Logo
শিরোনাম

যুক্তরাষ্ট্রে শ্বেতাঙ্গ আধিপত্যের কোনও সুযোগ নেই: বাইডেন

প্রকাশিত:সোমবার ২৮ আগস্ট ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ২৫ নভেম্বর ২০২৩ | ১৯০৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডার জ্যাকসনভিলের একটি স্টোরে ঢুকে ৩ কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তিকে নির্মমভাবে গুলি করে হত্যা করেছেন একজন শ্বেতাঙ্গ বন্দুকধারী যুবক। এ ঘটনায় আবারও আলোচনায় যুক্তরাষ্ট্রে কৃষ্ণাঙ্গদের ওপর বন্দুক হামলার বিষয়টি। এ প্রসঙ্গে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রে শ্বেতাঙ্গ আধিপত্যের কোনও জায়গা নেই।

যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় শনিবার (২৭ আগস্ট) ফ্লোরিডার ডলার স্টোরে ২০ বছর বয়সী এক শ্বেতাঙ্গ যুবক ভারী বন্দুক নিয়ে ঢুকে পড়ে। এরপরই এলোপাতাড়ি গুলি চালানো শুরু করে। কিছুক্ষণের মধ্যে পুলিশের সঙ্গে তার গোলাগুলি শুরু হয়। ওই ঘটনায় ৩ কৃষ্ণাঙ্গ ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান। এরপর নিজের বন্দুকের গুলিতে ওই যুবক আত্মহত্যা করে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পরদিন রবিবার ঘটনাস্থলে কয়েকশ মানুষ জড়ো হয়ে নিহত কৃষ্ণাঙ্গদের প্রতি ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। মর্মাহত প্রেসিডেন্ট বাইডেন নিহতদের পরিবারের প্রতি শোক জানিয়ে বলেছেন, তার দেশে ঘৃণ্য হামলার কোনও সুযোগ নেই।

জ্যাকসনভিলের শেরিফের টি কে ওয়াটরর্স বলেছেন, হামলাকারী দুজন পুরুষ ও একজন নারীকে গুলি করে হত্যা করেছে। বর্ণবিদ্বেষ থেকেই এ হত্যাকাণ্ড ঘটায় সে। কৃষ্ণাঙ্গদের সে ঘৃণা করতো।

স্থানীয় কর্মকর্তারাও এ ঘটনাকে বর্ণবিদ্বেষ ও ঘৃণ্য অপরাধ হিসেবে অভিহিত করে নিন্দা জানিয়েছেন। জো বাইডেন রবিবার বিবৃতিতে আরও বলেছেন, যদিও আমরা এ ঘটনার উত্তরের সন্ধান খুঁজে যাচ্ছি। আমাদের অবশ্যই স্পষ্টভাবে ও বলিষ্ঠ কণ্ঠে বলতে হচ্ছে, যুক্তরাষ্ট্রে শ্বেতাঙ্গ আধিপত্যের সুযোগ নেই।

বিবৃতিতে তিনি আরও বলেন, আমরা এমন একটি দেশে বাস করি, যেখানে আমাদের স্কুল-কলেজে যাওয়া কালো শিক্ষার্থী বা তাদের পরিবার শুধু ত্বকের কারণে হামলার আতঙ্কে বসবাস করে। আমাদের অবশ্যই স্বীকার করতে। নীরব থাকাটাই হলো জটিলতা। কিন্তু আমাদের চুপ থাকা যাবে না। বন্দুক সহিংসতা সংরক্ষণাগার ওয়েবসাইটের তথ্য অনুযায়ী, এ বছর যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক সহিংসতায় ২৮ হাজার মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন।


আরও খবর